বার্তা ডেস্কঃ প্রেম সব কিছুকে হার মানায় তার প্রমাণ দিল বাংলাদেশী কন্যা । নিজ দেশে থেকে সীমানার ওপারের ছেলের সাথে প্রেম অতঃপর বিয়ে ।
নিজে বাংলাদেশি কিন্তু প্রেম করেছে ভারতীয় চাচাতো ভাইয়ের সাথে। আর সেই প্রেমের টানে কাঁটাতার পেড়িয়ে ভারতে গিয়ে বিয়ে। অতঃপর অনুপ্রবেশের দায়ে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বিএসএফ’র হাতে আটক।
এমনি এক তরুণীকে আজ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় শেরপুরের নালিতাবাড়ী নাকুগাঁও স্থলবন্দর দিয়ে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ও বাংলাদেশ পুলিশের কাছে হস্তান্তর করেছে বিএসএফ।
বাংলাদেশ ইমিগ্রেশন পুলিশ সদস্য আবুল হোসেন জানান, অষ্টাদশী ওই তরুণীর বাড়ি জামালপুর জেলার দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার ভারতীয় সীমান্তবর্তী বাঘার চর গ্রামে। তরুণী চাচাতো ভাই জহিরুল ইসলাম ভারতের আসামের গোহাটির বড়পাটায় থাকে। আত্মীয়তার সুবাদে উভয়ের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। সেই প্রেমের টানেই প্রায় দেড় মাস আগে বাংলাদেশের মাখনের চর সীমান্ত দিয়ে ভারত দেয় উক্ত তরুণী। ভারতে গিয়ে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয় চাচাতো ভাইয়ের সাথে।
কিন্তু তাদের প্রেমে বাঁধ সাধে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ। গত ২৬ ডিসেম্বর বিএসএফ’র হাতে আটক হয় উক্ত তরুণী। পরে আদালত তাকে সাজা না দিয়ে বাংলাদেশে পাঠিয়ে দেয়ার নির্দেশ দেয়।
হস্তান্তরের সময় হাতিপাগার বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি)র এবং নালিতাবাড়ী থানা পুলিশের প্রতিনিধি এবং ভারতীয় পক্ষে কিল্লাপাড়া বিএসএফ পোস্টের প্রতিনিধি এবং পুলিশ প্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন।

bdwebhost24.com